মেনু নির্বাচন করুন
Text size A A A
Color C C C C

চাঁদপুর লঞ্চ টার্মিনাল

চাঁদপুর নদী বন্দর

 

নদীগর্ভে বিলিন হওয়া নরসিংহপুরে স্থাপিত হয় চাঁদপুর থানা ও অফিস আদালত। তখন পদ্মা, মেঘনা ও ডাকাতিয়া নদীর সঙ্গমস্থল ছিল বর্তমান স্থান থেকে প্রায় ৬০ মাইল দক্ষিণে। নরসিংহপুর ধীরে ধীরে নদীগর্ভে বিলিন হয়। পদ্মা, মেঘনা তীরে ধীরে ধীরে বর্তমান চাঁদপুর পত্তন হয়। ১৭৭৮ সালে চাঁদপুর মহকুমায় রূপান্তরিত হয়। এর আগে থেকেই পদ্মা, মেঘনা ও ডাকাতিয়ার সঙ্গমস্থলে গড়ে ওঠা ঐতিহাসিক চাঁদপুর নদী বন্দরের সুখ্যাতি সারা ভারতে ছড়িয়ে পড়ে। চাঁদপুর রেলওয়ে বড় স্টেশন সংলগ্ন হওয়ায় এই বন্দরের লঞ্চ ও স্টীমার ঘাটকেও বড় স্টেশন নামে ডাকা হয়। চাঁদপুর শহরটিকে দুভাগে বিভক্ত করে ডাকাতিয়া নদী। উত্তর পাড়ে নতুনবাজার আর দক্ষিণ পাড়ে পুরাণবাজার গড়ে ওঠে। প্রাচীনকাল থেকেই চাঁদপুর অন্যতম নদীবন্দর ও ঐতিহাসিক বাণিজ্যিক কেন্দ্র হিসেবে খ্যাত। বৃটিশ আমলে চাঁদপুর হয়ে কলিকাতা যাতায়াতের ব্যবস্থা ছিল। তখন চাঁদপুরকে “Gate way to Eastern India”বলা হতো।

সরকারীভাবে চাঁদপুর নদী বন্দর- এর পূণার্ঙ্গ কার্যক্রম ১৯৬৪ সালে আনুষ্ঠানিকভাবে শুরু হয় । ১৯৬০ সালে সরকার কর্তৃক গেজেট নোটিফেকেশনের মাধ্যমে অন্যান্য নদী বন্দরের সাথে চাঁদপুর নদী বন্দর ঘোষণা করা হয় এবং মেঘনা-ডাকাতিয়া নদীর মোহনা হতে ইচলী পর্যন্ত ০৭ কি.মি. বন্দর সীমানা (Port limit)নির্ধারণসহ বিআইডব্লিউটিএ-কে সংরক্ষক (Conservator) হিসেবে নিয়োজিত করা হয়। গেজেট অনুযায়ী চাঁদপুর নদী বন্দরের বন্দর সীমানা নিম্নরুপভাবে নির্ধারণ করা হয়।

(1)  To the East-A line drawn and south accross the Dhakatia River at longitude 90º-40©©©©©-20´´ E

(2) To the West – that portion of the Meghna river to the wastward of the out full of the Dakatia river which lies East at longitude 90º-38´-10´´ and bounded on the north by latitude 23º-14´-00´´ N up to 50 yards beyond the high water mark at ordinary spring tides from the East bank of the Meghna river within these described limits.

(3) To the north-up to 50 yards beyond the high water mark at ordinary spring tides from the north bank of the Dakaita river asitruns between the above described East and West limits.

(4) To the south up to 50 yards beyond the high water mark at ordinary spring tides from the south bank of the Dakatia river it runs between the above described East and West limits.

 

চাঁদপুর জেলার  আওতাধীনঃ ২০৩ কিঃ মিঃ নৌপথ রয়েছে, যা দিয়ে বিপুল সংখ্যক যাত্রী ও বিপুল পরিমাণ পণ্য পরিবহন করা হয়। চাঁদপুর নদী বন্দর কর্তৃপক্ষ চাঁদপুর জেলার ২০৩ কিঃ মিঃ সহ মোট ৬৭৫ কিঃ মিঃ নৌপথের নিয়ন্ত্রণ ও নাব্যতা রক্ষা করে থাকে। চাঁদপুর নদী বন্দর হতে বিভিন্ন নৌ-পথে যাত্রীবাহী একতলা, দ্বিতলা ও ত্রিতলা লঞ্চ এবং বিআইডব্লিউটিসি’র ষ্টীমার চলাচল করে থাকে। তাছাড়া পণ্যবাহী কার্গো, বাল্কহেড, ওয়েল ট্যাংকার এবং ছোট-বড় সকল ধরনের নৌ-যান চলাচল করে । চাঁদপুর লঞ্চ টার্মিনালে বৎসরে আনুমানিক ১৬,৪৬,৩৩১ জন (২০১০-২০১১) যাত্রী আগমন/নির্গমন করে থাকে। চাঁদপুর বন্দর সীমানায় মালামাল বছরে উঠানামার পরিমাণ ২,৫০,০০০ মেঃ টন (প্রায়)।  চাঁদপুর নদী বন্দরের নিয়ন্ত্রণাধীন বিভিন্ন ওয়েসাইড লঞ্চঘাট/পয়েন্ট দিয়ে আগমন/নির্গমনকারী যাত্রী সাধারণের সংখ্যা প্রায় ৭২,৮৮,১১৬ জন। চাঁদপুর নদী বন্দরের নিয়ন্ত্রণাধীন বিভিন্ন ওয়েসাইড লঞ্চঘাট/পয়েন্ট দিয়ে মালামাল উঠানামার পরিমাণ বছরে মোট ৫,২০,১২১ মেঃ টন (প্রায়)।